বাংলাদেশে অনলাইনে কিভাবে ইনকাম করা যায়

বাংলাদেশে অনলাইনে কিভাবে ইনকাম করা যায়?

বাংলাদেশে অনলাইনে কিভাবে ইনকাম করা যায়? এই পৃথিবীতে প্রত্যেক মানুষের টাকার প্রয়োজন। প্রত্যেকেই মাসে হাজার হাজার টাকা উপার্জন করতে চায়। মানুষ একটি স্বপ্নের বাড়ি বানাতে চায়, স্বপ্নের গাড়ি কিনতে চায় অথবা অন্য কোন স্বপ্ন পূরন করতে চায়। যার জন্য প্রয়োজন প্রচুর অর্থের। আজকের এই যুগে ইন্টারনেট সেই স্বপ্নগুলো পূরন করার জন্য সম্ভাবনার দুয়ার খুলে দিয়েছে। বাড়িতে বসে বা ভ্রমনরত অবস্থায়ও অনলাইনে অর্থ উপার্জন করা যায়। আপনি হতে পারেন একজন ছাত্র, বেকার ব্যক্তি, গৃহিনী, চাকুরীজীবি অথবা অবসর প্রাপ্ত ব্যাক্তি যিনি অনলাইনে অর্থ উপার্জন করতে পারেন।

কিন্তু এটা আসলে এতটা সহজ নয় যতটা সহজ মনে হচ্ছে। আমাদের দেশে অনলাইনে অর্থ উর্পাজনের জগৎ প্রতারনায় পরিপূর্ণ সুতরাং আপনাকে এই বিষয়ে সচেতন হতে হবে। কেউ যদি আপনাকে রেজিস্ট্রেশন/ অ্যাকাউন্ট খোলার জন্য বা অনলাইনে কাজের জন্য আগেই টাকা দিতে বলে তাহলে ১০০ হাত দূরে থাকবেন। এটি প্রতারনা ছাড়া আর কিছু না। কারণ অনলাইনে অর্থ উপার্জন করে হাতে পাওয়া পর্যন্ত কোথাও কোন টাকা খরচ করতে হয় না।

এখানে, আমি অনলাইনে অর্থ উর্পাজনের প্রয়োজনীয় সকল তথ্য দিচ্ছি। আপনি যদি এটি পুরোপুরি পড়েন তাহলে সবকিছু বুঝতে পারবেন।

যাইহোক এখানে ব্যাখ্যা করা কোন পদ্ধতি আপনাকে রাতারাতি ধনী হতে সহায়তা করবে না । তবে আপনি যদি কঠোর পরিশ্রম করেন এবং সঠিক ভাবে অগ্রসর হন তাহলে একটা পর্যায়ে বেশ ভাল পরিমান উপার্জন করতে পারবেন।

উপার্জনের ধরন অনুযায়ী অনলাইনে অর্থ উপার্জন দুই ধরনের-

Active income. যেমন- Freelancing Earnings.
Passive income. যেমন- Blog and YouTube Earnings.

 

বাংলাদেশে অনলাইনে কিভাবে ইনকাম করা যায়?

 

১। ইকমার্স সাইটগুলোতে বিক্রয় করুন

বাংলাদেশে খুব সহজে কিভাবে টাকা ইনকাম করা যায় এসব নিয়ে ভাবছেন? তবে সহজ একটি অনলাইন ইনকাম পদ্ধতি সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক। যেহেতু ই-বাণিজ্য খাতটি দিন দিন দ্রুত বাড়ছে, দারাজ বাংলাদেশের মতো এত জনপ্রিয় ও সবচেয়ে বড় ইকমার্স ওয়েবসাইটে পণ্য বিক্রি করা এখন অনলাইনে আয় করার নিশ্চিত উপায় (2021) হিসেবে গণ্য হয়। কিভাবে দারাজে বিক্রয়কারী হিসেবে সাইন আপ করবেন তা জেনে আপনি সহজেই অনলাইনে বিক্রয় শুরু করতে পারেন। ঘরে বসে অর্থ উপার্জন করার এটাও একটি সুবর্ণ সুযোগ।

২। অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং দিয়ে অর্থোপার্জন করুন

আপনার যদি কোনও ওয়েবসাইট, ইউটিউব চ্যানেল, বা ফেসবুক পেজ থেকে থাকে, তবে অর্থ উপার্জনের জন্য সেরা অনলাইন মাধ্যম হতে পারে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং। ফেসবুকে কিভাবে টাকা আয় করা যায়? ফেসবুকে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে ইনকাম করা যায়। অনলাইনে নিশ্চিন্তে অর্থ উপার্জনের জন্য আপনি দারাজ অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং প্রোগ্রামটিতে আস্থা রাখতে পারেন, যেখানে বিকাশ সহ অন্যান্য পেমেন্ট মেথড ব্যবহারের সুযোগ রয়েছে।

৩। একজন রিসেলার হয়ে হয়ে উঠুন

একজন রিসেলার হয়েও বাংলাদেশে অর্থ উপার্জনের যথেষ্ট সুযোগ রয়েছে। এজন্য আপনাকে পুনরায় বিক্রয় উপযোগী সঠিক পণ্যটি বেছে নিতে হবে এবং তারপর যথাসম্ভব সর্বনিম্ন পাইকারি দামে থেকে ক্রয় করতে হবে। এরপর আপনার নিজস্ব প্রফিট মার্জিন সেট করতে পারলেই সে অনুযায়ী পণ্য বিক্রয় করে একজন সফল রিসেলার হিসেবে লাভবান হতে পারবেন আপনিও।

৪। আপনার অল্প ব্যবহৃত পণ্য বিক্রয় করুন

আপনার পুরনো ব্যবহৃত যেসব অক্ষত জিনিস অযোথা বাসায় পড়ে আছে, সেসব দ্রব্য সামগ্রী বিক্রি করেও অনলাইনে অর্থ উপার্জন করতে পারেন। বর্তমানে বাংলাদেশে বিক্রয় ডটকম, ইবাজার, ক্লিকবিডি সহ অসংখ্য পুরাতন মালামাল বিক্রির ওয়েবসাইট থেকে আপনি এই বিশেষ সুবিধা পেতে পারেন। এটাও শিক্ষার্থীদের জন্য বিনিয়োগ ব্যতীত অনলাইনে অর্থ উপার্জনের এক দুর্দান্ত উপায়।

৫। রাইড শেয়ারিং সার্ভিসের সাথে নিজেকে যুক্ত করুন

আপনার যদি মোটরসাইকেল অথবা কার থেকে থাকে, তাহলে পাঠাও, উবার, ওভাই, সহজ প্রভৃতি রাইডিং সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে সহজ আয়ের একটা বিশাল সুযোগ লুফে নিতে পারেন। এসব রাইডার ভিত্তিক সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠানের সাথে সাইন আপ করে আপনি অনলাইন আয়ের একটি মাধ্যম হিসেবে অর্থ উপার্জন শুরু করতে পারেন। এমন আরো অনেক অ্যাপ বা ওয়েবসাইট ভিত্তিক প্রতিষ্ঠান থেকে অনলাইনে অর্থ উপার্জন করা বেশ সহজ বটে। এছাড়া আপনি যদি সাইকেল দাম দিয়ে কিনে ফেলে রেখেছেন- এমন হয় তাহলে খুব সহজেই ফুড ডেলিভারি করে ভালো পরিমাণ অর্থ আয় করতে পারেন।

৬। ফ্রিল্যান্সিং

বাংলায় একটা প্রবাদ আছে, “থাকে কাজ তো সকালে সাজ, নেই কাজ তো খই ভাঁজ!” কিন্তু ফ্রিল্যান্সিং বর্তমানে এতটাই লাভজনক যে পেশাটিকে বর্তমানে অনেকে চাকরি ও ব্যবসা এর উপরে প্রাধান্য দিয়ে থাকেন। আর আপনি যদি সর্বাধিক নির্ভরযোগ্য অনলাইন অর্থোপার্জন উপযোগী সাইটগুলোর সন্ধান করে থাকেন বা ঘরে বসে কিভাবে আয় করা যায় তা জানতে চান, তবে ফ্রিল্যান্সিং সাইটগুলি আপনার জন্য সেরা সমাধান হতে পারে। আপনি আপওয়ার্ক, ফাইভার এবং ফ্রিল্যান্সার ডটকম এ আপনার দক্ষতা লিখে সহজেই অনলাইনে অর্থ উপার্জন করতে পারেন এবং ঘর থেকেই আপনার ক্লায়েন্টের জন্য কাজ করতে পারেন।

৭। আপনার গাড়িটি ভাড়ায় পরিচালনা করুন

আপনার যদি কোন গাড়ি থেকে থাকে তবে সেটা ভাড়ায় চালনা করে অর্থ উপার্জন করা সম্ভব। অর্থাৎ গাড়ি ভাড়া দিয়েই আপনি কোন কাজ ছাড়াই খুব সহজে অর্থ উপার্জন করতে পারছেন। এখন অনলাইনে গাড়ি ভাড়া দিয়ে অর্থ উপার্জনের জন্য কয়েকটি সেরা অ্যাপ ও ওয়েবসাইট রয়েছে।

৮। জরিপ এর মাধ্যমে আয়

বাংলাদেশে টাকা আয় করার জন্য বর্তমানে বেশ কয়েকটি সেরা ওয়েবসাইট রয়েছে যা বিভিন্ন বিষয় জরিপের মাধ্যমে অনলাইনে ওয়েবসাইট থেকে আয় করার সুযোগ দেয়। অর্থ উপার্জনের জন্য আপনাকে নির্দিষ্ট একটি জরিপে অংশ নিতে হবে। শিক্ষার্থীদের জন্য অনলাইনে টাকা আয় করার ওয়েবসাইট হিসেবে আপনি কয়েকটি সেরা অর্থের বিনিময়ে জরিপ সাইটগুলি খুঁজে পেতে পারেন।

৯। একজন গৃহশিক্ষক হয়ে উঠুন (অনলাইন / অফলাইন)

অফলাইনে ও অনলাইনে টাকা আয় করার অনেকগুলি উপায় রয়েছে। আর সেগুলোর মধ্যে অন্যতম একটি হল টিউশন। কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের জন্য টিউশনি টাকা আয়ের এক দুর্দান্ত মাধ্যম হতে পারে। ছাত্র-ছাত্রীকে বাসায় গিয়ে পড়িয়ে অথবা ঘরে বসে অনলাইনে পড়ানোর মাধ্যমে টাকা ইনকাম করা এখন অনেক সহজ।

১০। একটি ইউটিউব চ্যানেল শুরু করুন

বাংলাদেশে বর্তমানে অনলাইনে টাকা আয়ের অতি উত্তম একটি মাধ্যম হল ইউটিউব। এটিকে বাংলাদেশের সেরা অনলাইন আয়ের সাইট হিসেবেও বিবেচনা করা হয়। আপনার যদি কোন ইউটিউব চ্যানেল থাকে তবে আপনি সহজেই অনলাইনে অর্থ উপার্জন করতে সক্ষম হবেন।

১১। একজন সফল ইনফ্লুয়েন্সার হয়ে উঠুন

বর্তমানে ইনফ্লুয়েন্সিং পেশাটি অনেক জনপ্রিয় হয়ে উঠতে শুরু করেছে। অনলাইনে সোশ্যাল মিডিয়া বিশেষ করে ফেসবুক, ইন্সটাগ্রাম অথবা ইউটিউব কিংবা ওয়েবসাইটের মাধ্যমেও আপনি একজন সফল ইনফ্লুয়েন্সার হয়ে অনলাইনে অর্থ উপার্জন করতে পারেন। এটি অনলাইনে টাকা ইনকাম করার একটি দুর্দান্ত উপায়। এই পেশার মাধ্যমে আপনি টার্গেট করা অডিয়েন্সকে প্রভাবিত করে কিছু নগদ টাকা আয় করে নিতে পারেন।

১২। একটি ব্লগ শুরু করুন

আপনি যদি কখনও অনলাইনে কিভাবে অর্থ উপার্জন করা যায় সেটা নিয়ে ভেবে থাকেন, তবে একটি ব্লগ শুরু করা হবে আপনার জন্য সহজ সমাধান। আপনি যদি গুগোল থেকে আপনার সাইটে একটি বড় অংকের অর্গানিক ট্র্যাফিক দখল করতে পারেন, তবে আপনার ওয়েবসাইটটি একটি আসল অনলাইন আয়ের সাইট হতে পারে।

১৩। একজন লেখক হন

আপনি যদি একজন লেখক হয়ে থাকেন, তবে ইজিটাইপিংজব এর মত প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্য লেখালেখি করে টাকা আয় করতে পারবেন। বাংলাদেশের অনেক অনলাইন আর্নিং সাইটে কন্টেন্ট রাইটার হিসেবে অর্থ উপার্জন করা সম্ভব।

১৪। একজন পর্যালোচক হয়ে উঠুন

রিভিউ বা পর্যালোচনা এখন অনলাইন মার্কেটিং এর প্রবল সম্ভাবনার প্রতীক। এখন অনলাইনে পণ্য রিভিউ করে ঘরে বসেই পর্যাপ্ত টাকা আয় করতে পারেন।

১৫। একজন খন্ডকালীন ফটোগ্রাফার হন

শাটারস্টক ডটকমের মতো অনেকগুলি সেরা ওয়েবসাইট রয়েছে যেখানে আপনার সেরা ক্যাপচার করা ফটোগ্রাফ গুলো তাদের কাছে বিক্রি করে কিছু আয় করার সুযোগ দেয়। কেবল কিছু দুর্দান্ত ফটোগ্রাফি করেই নগদ অর্থ উপার্জনের একটি দুর্দান্ত উপায় হতে পারে এটি।

১৬। বিকাশের মাধ্যমে টাকা আয় করুন

অনলাইনে ইনকাম করার জন্য আরো অনেক গুলো বাস্তব সুযোগ রয়েছে। যেমন বিকাশে টাকা ইনকাম করার উপায় হিসেবে আপনি ঘরে বসে মোবাইল দিয়ে আয় করে বিকাশে টাকা পাচ্ছেন মোবাইলে। কিভাবে গেম খেলে টাকা আয় বিকাশে (2021) করা যায়, দেখে নিতে পারেন অনলাইনে। আপনি কি জানেন কিভাবে ভিডিও দেখে টাকা ইনকাম (২০২১) করা যায়? ভিডিও দেখে টাকা ইনকাম করে পেমেন্ট বিকাশে নিতে পারবেন বর্তমানে।

বাংলাদেশে টাকা ইনকাম করার সহজ উপায় আরো যেসব পদ্ধতিতে:অনলাইনে কি কি কাজ করা যায় আর? গেম খেলে টাকা আয় বিকাশে (2021) করা যায়। আরো টাকা ইনকাম করার গেম আছে যেমন লুডু খেলে টাকা ইনকাম, জাভা গেম খেলে টাকা আয়, তাস খেলে টাকা ইনকাম, free fire খেলে টাকা ইনকাম, quiz খেলে টাকা আয় এমনকি টিকটক ও লাইকি থেকে টাকা ইনকাম এখন অনেক সহজ। অনলাইনে গেম খেলে টাকা ইনকাম করার অ্যাপস খুঁজে পেতে গেম খেলে টাকা আয় 2020 বা গেম খেলে টাকা ইনকাম ২০২০ লিখে সার্চ করতে পারেন। আর google থেকে টাকা ইনকাম করতে এডসেন্স থেকে টাকা তোলার পদ্ধতি ও কিভাবে গুগল এডসেন্স একাউন্ট খুলব -এ সংক্রান্ত তথ্যে চোখ বুলিয়ে নিতে পারেন। আর টাকা আয় করার apps বা টাকা ইনকাম করার অ্যাপ অনলাইনে খুঁজে পেতে বাংলাদেশি app দিয়ে টাকা ইনকাম 2021 লিখে গুগোল সার্চ করতে পারেন। এক্ষেত্রে টাকা ইনকাম করার অ্যাপ ২০২১ লিখেও গুগোলে সার্চ করে দেখতে পারেন। আপনার মোবাইল দিয়ে টাকা আয় 2021 করা যায় কিভাবে সেটা জানার জন্য কিছু বিকাশে আয় করার সাইট দেখে নিতে পারেন। সেই সাথে ডলার আয় করার উপায় আছে অনলাইনে।

অনলাইনে উপার্জনের অনেকগুলি উপায় রয়েছে যেমন বাংলাদেশে বা পিপিসিতে বিজ্ঞাপন দেখে টাকা আয় বা ইনকাম, তবে এগুলোর মধ্যে অনেকগুলিই কেবল স্প্যাম। সুতরাং আপনার অনলাইন কাজ শুরু করার আগে আপনাকে অবশ্যই অনলাইন পেজ বা সাইটের সত্যতা পরীক্ষা করতে হবে। অনলাইনে কাজ শিখুন, আপনার দক্ষতা অনুযায়ী সহজেই কিছু অনলাইন কাজ পেতে পারেন। ভাগ্য সুপ্রসন্ন হোক।

"<yoastmark

 

Similar Posts

4 Comments

  1. Outstanding important articles that is crucial need to know everyone who want to earning from online.

Leave a Reply

Your email address will not be published.